মজার রান্না ঃ এক সময় আমাদের বলা হতো, ‘মাছে ভাতে বাঙালি’। কিন্তু সময়ের পরিবর্তনে আমাদের খাবারের টেবিলে দেশি খাবারের পাশাপাশি জায়গা করে নিয়েছে হরেক রকমের বিদেশি খাবার। বিশেষ করে তরুণ প্রজন্মের মধ্যে পাশ্চাত্যের সংস্কৃতির পাশাপাশি খাবারেরও ব্যাপক প্রচলন ঘটেছে।

ভিন্ন দেশের সংস্কৃতিকে আপন করে নেওয়া উচিত নয়। তবে খাবার যেহেতু আমাদের বেচে থাকার বড় এক নিয়ামক, সেহেতু বিদেশি খাবারের স্বাদ ও গন্ধ নেওয়া কোনো অপরাধ নয়। সে কারণে দেশি খাবারের পাশাপাশি বিভিন্ন স্বাস্থ্যসম্মত বিদেশি খাবারো খাওয়া উচিত। তাই চলুন, আজ কিছু বিদেশি খাবারের রেসিপি সম্পর্কে জেনে নিই।

অ্যাপল টার্ট

অ্যাপল টার্ট মূলত একটি ফরাসি খাবার। ক্রাস্টের ওপর আপেলের ফালি দিয়ে এই খাবারটি তৈরি করা হয়। এটি রান্না করার প্রক্রিয়া খুবই সহজ। সকল উপকরণ হাতের নাগালে থাকলে সব মিলিয়ে দুই ঘন্টার মধ্যে সুস্বাদু অ্যাপল টার্ট তৈরি করা সম্ভব।

উপকরণ

ফিলিং বা পুর তৈরির উপকরণ

৫টি আপেল, খোসা ছাড়িয়ে ভিতরের বিচিগুলো বের করে পাতলা ফালি করতে হবে

১/৩ কাপ চিনি

লেবুর রস, অর্ধেক লেবু থেকে যতটুকু হয়

১ চা চামচ দারুচিনি গুঁড়া

১ চা চামচ ভ্যানিলা

ক্রাস্ট তৈরির উপকরণ

১.২৫ কাপ ময়দা

১/৪ কাপ চিনি

১ চা চামচ দারুচিনি গুঁড়া

১০ টেবিল চামচ মাখন, গলানো

অ্যাপ্রিকট প্রিজার্ভ, গলানো

১/২ চামচ লবণ

১ টেবিল চামচ মিহি চিনি

৩ টেবিল চামচ মাখন, কিউব করে কেটে নিতে হবে

প্রস্তুত প্রণালি

প্রথমে বড় একটি বাটিতে আপেল, চিনি, লেবুর রস, দারুচিনি গুঁড়া, ভ্যানিলা ও লবণ একসাথে মাখিয়ে নিতে হবে। এরপর ওভেনে ৩৫০ ডিগ্রি ফারেনহাইট তাপমাত্রায় আপেলগুলো হালকা করে ভেজে নিতে হবে।

এরপর অপর একটি বড় বাটিতে ময়দা, চিনি, দারুচিনি গুঁড়া ও লবণ একসাথে হুইস্ক করে নিতে হবে। তারপর এর মধ্যে গলানো মাখন দিয়ে ভালোভাবে মিশিয়ে ডো তৈরি করতে হবে।

এরপর ১০-১১ ইঞ্চি ব্যাসের টার্ট তৈরির পাত্রে মিশ্রণটি রাখতে হবে এবং একদম মসৃণ না হওয়া পর্যন্ত হাত দিয়ে চাপতে হবে।

এরপর টার্টের পাত্রে তৈরি ক্রাস্টের ওপর আপেলগুলো সাজাতে হবে এবং তার ওপর মিহি চিনি ছিটিয়ে দিতে হবে।

তারপর কিউব করে কেটে নেওয়া বাটার দিয়ে প্রায় ১ ঘন্টা ওভেনে বেক করতে হবে, যেন আপেলের টুকরাগুলো নরম হয়। সবশেষে আপেলের ওপর অ্যাপ্রিকট প্রিজার্ভ দিয়ে পরিবেশন করতে হবে।

ক্র্যানবেরি ব্রি বাইটস

অনেকেই দোকান থেকে মাফিন কেক কিনে খেয়ে থাকেন। ক্র্যানবেরি ব্রি বাইটস দেখতে মাফিন কেকের মতোই, তবে স্বাদটা ভিন্ন। এই খাবারটি তৈরি করা যেমন সহজ, তেমনি সময়ও লাগে কম। অল্প কিছু উপাদানের সাহায্য এই খাবারটি তৈরি করা হয়। তবে এর মূল উপাদান ক্রিসেন্ট ডো, ব্রি পনির ও ক্র্যানবেরি জুস।

উপকরণ

২৫০ গ্রাম টিউব ক্রিসেন্ট ডো

কুকিং স্পে

ময়দা

২৫০ গ্রাম ব্রি পনির

১/২ কাপ ক্র্যানবেরি সস

১/৪ কাপ পিক্যান, কুচি

৬টি রোজমেরি পাতা, ১ ইঞ্চি আকারে টুকরো করতে হবে

প্রস্তুত প্রণালি

আগে থেকে ৩৭৫ ডিগ্রি ফারেনহাইটে ওভেন গরম করে রাখতে হবে। তারপর মাফিন তৈরির ছোট ছোট কৌটায় কুকিং স্পে করতে হবে এবং সামান্য করে ময়দা ছিটিয়ে দিতে হবে।

এরপর ক্রিসেন্ট ডো বের করে মোট ২৪ টুকরা করে মাফিনের কৌটায় রাখতে হবে।

তারপর ব্রি পনির ছোট ছোট টুকরা করে কেটে ক্রিসেন্ট ডোর ওপর রাখতে হবে। এরপর পর্যায়ক্রমে ক্র্যানবেরি সস, পিক্যান কুচি ও রোসমেরি দিয়ে ১৫ মিনিট বেক করতে হবে।

ক্রিসেন্ট ডো যখন সোনালি হয়ে আসবে, তখন ওভেন থেকে নামিয়ে ঠান্ডা করে পরিবেশন করতে হবে।

গ্রিন স্প্যাঘেটি

যারা মসলাদার খাবার পছন্দ করেন তাদের জন্য গ্রিন স্প্যাঘেটি একদম আদর্শ খাবার। স্প্যাঘেটি মূলত এক ধরনের পাস্তা। এর সাথে কিছু মসলা ও পনির দিয়ে গ্রিন স্প্যাঘেটি তৈরি করা হয়। এই খাবারে অতিরিক্ত ঝালযুক্ত মরিচের পরিবর্তে মাঝারি ঝালের কাঁচামরিচ ব্যবহার করা হয়, যাতে ছোট বড় সকলেই খেতে পারেন।

উপকরণ

৪টি কম ঝালযুক্ত কাঁচামরিচ

১/৪ কাপ সিলান্ট্রো পাতা, সাথে গার্নিশের জন্য সামান্য

১টি পেয়াজ, কুচি

২ কোয়া রসুন, কুচি

২ টেবিল চামচ মাখন

১/৪ কাপ ভেজিটেবল ব্রথ

১/২ কেজি স্প্যাঘেটি

১২৫ গ্রাম ক্রিম চিজ, কিউব করে কাটা

গোল মরিচ গুঁড়া

লবণ

প্রস্তুত প্রণালি

প্রথমে ছোট একটি পাতিলে পানি গরম করে তার মধ্যে কাঁচামরিচ ছেড়ে দিয়ে সেদ্ধ করতে হবে। চারপাশ ভালোভাবে সেদ্ধ হলে পাতিল থেকে নামিয়ে আলাদা একটি বাটিতে রাখতে হবে।

১০ মিনিট বাটিতে রেখে ঠান্ডা করে সিলান্ট্রো, পেঁয়াজ ও রসুনের সাথে ব্লেন্ডারে ব্লেন্ড করে নিতে হবে।

এরপর বড় একটি কড়াই চুলায় দিয়ে মাঝারি আচে মাখন গলাতে হবে। তারপর মাখনের মধ্যে কাঁচামরিচের মিশ্রণ ও ভেজিটেবল ব্রথ ঢেলে দিয়ে ভালোভাবে নাড়তে হবে এবং হালকা ঘন হওয়া পর্যন্ত জ্বাল করতে হবে।

একই সময় লবণ পানিতে স্প্যাঘেটি সেদ্ধ করে পানি দিয়ে ধুয়ে নিতে হবে।

তারপর কাঁচামরিচ দিয়ে তৈরি সসের মধ্যে ক্রিম পনির দিয়ে ভালোভাবে নেড়ে লবণ ও গোলমরিচের গুঁড়া দিয়ে সিজনিং করতে হবে। এরপর তার মধ্যে স্প্যাঘেটি দিয়ে ভালোভাবে নাড়তে হবে।

সবশেষে দুইটি প্লেটে স্প্যাঘেটি নামিয়ে সিলান্ট্রো দিয়ে পরিবেশন করতে হবে